প্রবাস জীবন
কামরুন্নাহার চৌধুরী শেফালী

সপ্ন লোকের জ্বাল বুনিয়া যায়রে প্রবাসে
আপন হারা কষ্ঠ অনেক, কে বা ভালবাসে।
গভীর মনে ভাবি, ভাবতে লাগে অবাক
স্বদেশকে ত্যাগ করি যায় ফিরাতে দূঃখের দাগ

প্রবাসে আছে যারা তাঁরাই শুধু জানে
মাথার ঘাম পায়ে জড়ায় আপন জনের টানে।
শত কষ্ঠ শত ব্যস্ত তবুও কাজের ফকেঁ ফাকেঁ
আপন জনের খবর নেয় সবার দুঃখে সুখে।
কিন্তুু আমরা তাদের কষ্ঠ কজনে বুজতে পারি
কেমন করে প্রবাসে আছে মোদের ভাই বন্ধু স্বরি।

আপন হারা স্বজন ছাড়া বিষাদ ভরা মন
প্রতিক্ষনে স্বরন করে দেশ আপন স্বজন।
স্ত্রী সন্তান নিয়ে যারা প্রবাসে থাকে একটু ভালো
সবাই ফেলে একা প্রবাসে যারা মনটা বিষন কালো।
তাদের কষ্ঠ জানে কে,প্রবাস কতোযে কষ্ঠের দেশ
দেশে আছে যারা তাদের আনন্দের নাই শেষ।

দেশে বসেে আছে যারা বিলাসবহুল মন,
তারাতাড়ি পাঠাও টাকা আছে অনেক প্রয়োজন
চোখের জল ফেলে প্রবাসে ভাবতে থাকে অনেক
প্রবাসে যে কষ্ঠের জিবন বুঝবেনা তাদের বিবেক।
প্রবসির মা বোন দেখতো যদি তাদের কষ্টের বাহার
বোকে লাগতো ধারুন ব্যাথা চোখে অন্ধকার।

এতো স্রম এতো কষ্ঠ প্রবাসেে আপন দেশ ছাড়ি,
আপনজনাদের সুখের জন্য বিদেশ দিছে পাড়ি।
কারো হয়তো সুখের মশাল কেউ বা সুখের আশায়
শত কিছুর পরেও জান সেটা যে প্রবাস ।

আমার দেশের যারা আছে সুদুর প্রবাসে
সুস্থ থাকো খোদার রায়ে সবাই বিদেশে
মাটির মায়া নাড়ির টান,তাইতো ভাবে বছর যার মাসে আপন মাটির আপন স্বজন দুরে রেখে আছে যে প্রবাস।