মাদারীপুরের রাজৈরে সংবাদ সংগ্রহের জেরে সাংবাদিক সোহেলের পিতার উপর সন্ত্রাসী হামলা।

মাদারীপুরের রাজৈরে সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে কথা কাটাকাটির জের ধরে “দৈনিক আমাদের পত্রিকা ” এর সম্পাদক ও প্রকাশক ও “দৈনিক আমাদের নতুন সময়” পত্রিকার উপজেলা প্রতিনিধি আকাশ আহাম্মেদ সোহেল এর পিতার উপর অতর্কিত হামলা চালিয়েছে সন্ত্রাসীরা।

গত (১ এপ্রিল) বুধবার পূর্ব স্বরমঙ্গল পল্লীবিদ্যুৎ এলাকায় আনুমানিক দুপুর ১২টায় এ ঘটনা ঘটে। বর্তমানে সাংবাদিক সোহেলের পিতা রাজৈর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গুরুতর আহত অবস্থায় চিকিৎসাধীন আছে।

সাংবাদিক আকাশ আহাম্মেদ সোহেল বলেন, কিছুদিন আগে রাজৈর আবাসিক এলাকায় সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে জাকির হোসেন (৪০) নামে এক ব্যক্তির সাথে কথা কাটাকাটি হয় এবং সেই জের ধরে আমাকে একাধিক বার ক্ষতি করার চেষ্টা করে। গত ৩১ মার্চ রাত আনুমানিক সাড়ে ৭টার দিকে কাঠের পুল এলাকায় আমার উপরে জাকিরসহ ৩/৪জন সন্ত্রাসী হামলা চালালে আমি বাচার জন্য চিৎকার দিলে আমার ডাকে স্থানীয় লোকজন জড়ো হলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। আমাকে তারা সময় সুযোগ মত ক্ষতি করতে না পেরে আমার পিতার উপর জাকির হোসেন (৪০), জাহিদ শেখ(২৫), আছাদ শেখ(২৮), ইব্রাহীম শেখ(৩০) সহ আরো অজ্ঞাতনামা ৪/৫ জন প্রকাশ্যে হামলা চালায়। আমি একজন সাংবাদিক হয়ে জাতির জন্য কাজ করে আসছি, আমি এবিষয়ে রাজৈর থানায় একটি অভিযোগ পত্র জমা দিয়েছি। আমার পিতার উপর যারা হামলা চালিয়েছে আমি এদের বিচার চাই।

জাতীয় সাংবাদিক সংস্থা মাদারীপুর জেলা শাখার সাধারন সম্পাদক, আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, গত ১ মাসের মধ্যে মাদারীপুর জেলায় পিতাসহ ৬জন সাংবাদিক সন্ত্রাসী হামলায় স্বীকার হয়েছে। এদের মধ্যে নারী সাংবাদিক সাবরীন জেরীনসহ ৩ সাংবাদিকের উপর অতর্কিত হামলা চালিয়েছে এলজিইডি’র কর্মচারী নাসির উদ্দিন ও ঠিকাদাররা। এদিকে মাদারীপুরের শিবচরে সাংবাদিক মোঃ আবু সালেহ মুসা ওরফে রওসাদ কে মোটরসাইকেল চাপা দিয়ে হত্যার চেষ্টা করেছে সন্ত্রাসীরা। এই মাদারীপুরে জাতির বিবেকদের যারা ধংশ করতে চায় এদের কি কোন বিচার হবেনা? এ ঘটনায় তিব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই । অবিলম্বে দোষীদের গ্রেপ্তার করে আইনানুক ব্যবস্থা গ্রহন করা হোক।

মাদারীপুর রাজৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা  খোন্দকার শওকত জাহান জানান,  সাংবাদিক আকাশ আহাম্মেদ সোহেলের পিতার ঘটনায় অভিযোগ পেলে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।